Loading...
You are here:  Home  >  রাজনীতি  >  রাজ্য  >  Current Article

মদনদার দোষটা কোথায়?‌

By   /  March 4, 2017  /  No Comments

সমাজসেবা করতে গিয়ে দাদা জেলে গেলেন। অন্য কেউ হলে সাতজন্মে আর সমাজসেবা করত না। কিন্তু মদনদা তেমন নন। তিনি বেরিয়ে এলেন। তাঁর ‘‌বিনম্র আবেদন’‌ অ্যাপোলো মেনে নিল। এতে দাদার দোষটা কোথায়? ভাল লোকের সত্যিই কোনও কদর নেই।‌ লিখেছেন রবি কর।। 

যা দিনকাল পড়েছে, এই দুনিয়ায় ভালো লোকের দাম নেই। এই যেমন আমি। এত ভালো লিখি কিন্তু বেঙ্গল টাইমসের এডিটরের কাছে না পেলাম মাইনে না পেলাম নাম। যেই দেখল আমার লেখাগুলো জনপ্রিয় হচ্ছে, অমনি মনের মধ্যে কুচুটেপনা জেগে উঠল। রবি করের বদলে কথাকার কে শতরূপ ঘোষ, তার লেখা ছাপতে শুরু করল। যাই হোক নিজের দুঃখের কথা বলে আপনাদের সময় নষ্ট করব না। প্রায় একবছর পরে একটা লেখার সুযোগ পেয়েছি, সেটার সদ্ব্যবহার করি।

বলছিলাম, আজকের দিনে ভালো মানুষের কোনও কদর নেই। যেমন ধরুন আমাদের মদনদা, মানে মদন মিত্র। প্রবাদে আছে, এগোলেও গুখেকোর ব্যাটা, পিছলেও গুখেকোর ব্যাটা- মদনদার অবস্থা সেই রকম। সমাজসেবা করতে গিয়ে দাদা এতদিন জেল খেটে এল। তাই নিয়ে কুচক্কুরে বিরোধীরা কত ব্যঙ্গবিদ্রুপ করল। অন্য কেউ হলে মনের দুঃখে সমাজসেবা ছেড়ে দিত।

madan mitra5কিন্তু মদনদা তেমন বান্দা নন। অ্যাপোলো হাসপাতালের বিরুদ্ধে এমন হুঙ্কার ছেড়েছেন যে অ্যাপোলো থেকে মারকো পোলো হয়ে গেছে। যে কোনও দিন রাজ্য ছেড়ে বিশ্ব ভ্রমণে বেরিয়ে পড়বে। অন্য রাজ্য হলে, অন্য দল হলে, দাদাকে মাথায় করে রাখত। কিন্তু দাদার পোড়া কপাল। দল, দিদি সবাই তাঁর ওপরে খচে গেছে।
আপনারাই বলুন দাদা কী এমন অন্যায় করেছে? এ রাজ্যে সব কিছু যার অনুপ্রেরণায় হয়, মদনদাও তো তাঁর থেকেই অনুপ্রেরণা পেয়েছেন। তিনি টাউন হলের মিটিংয়ে বেসরকারি হাসপাতালগুলিকে আচ্ছা করে কড়কে দিলেন। তাঁর দেখাদেখি মদনদাও অ্যাপোলোকে কড়কে দিলেন। যদি বলেন, এইভাবে হুমকি দিলে বেসরকারি হাসপাতালগুলি রাজ্য ছেড়ে চলে যাবে, তাহলে বলব এটাও অনুপ্রেরণা। টাটারাও হুমকির মুখেই রাজ্য ছেড়েছিল। তাহলে মদনদার দোষটা কী?

অনেক ভেবেচিন্তে দেখলাম, দাদার দোষটা সামান্য নয়। অত্যন্ত গুরুতর। বামন হয়ে চাঁদে হাত দেওয়া যেমন অন্যায়, মদন হয়ে অ্যাপোলোতে হাত দেওয়াও তেমনই অন্যায়। ব্যাপারটা ঠাণ্ডা মাথায় বোঝার চেষ্টা করুন। পবিত্র হাওয়াই চটির দিব্যি খেয়ে বলুন তো, দিদির হুমকিতে বেসরকারি হাসপাতালগুলির ভয় পাওয়ার কোনও চিহ্ন দেখা গেছে? ফিক্সড ডিপোজিট জমা নেওয়া, প্যান কার্ড জমা নেওয়া, ভুলভাল কাগজে সই করানো- কলকাতা থেকে জেলা নানা জায়গায় অভিযোগ উঠেছে। কিন্তু দাদা একবার হালুম করতেই অ্যাপোলো ভুল স্বীকার করল, টাকা ফেরত দিল। শুধু তাই নয়, রূপালি ম্যাডাম অ্যাপোলো ছেড়েই পালিয়ে গেল। দিদির হুমকিতে যা হল না, দাদার হুমকিতে তাই হল? এই রাজ্যে এর থেকে গুরুতর অপরাধ আর হয়?

madan mitra salute

তা ছাড়া মদনদা হুমকি দেওয়ার ভাষাতেও বাড়াবাড়ি করে ফেলেছিলেন। তিনি বলেছিলেন, আমি যদি তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি থাকতাম, তাহলে দেখিয়ে দিতাম। এই কথার মানে কী? এখন যিনি তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি, তিনি কিছু দেখাতে পারছেন না? তিনি অযোগ্য? মদনদা আপনি কি জানেন না, বর্তমানে তৃণমূল যুব কংগ্রেসের সভাপতি কে? পথদুর্ঘটনায় তাঁর চোখে যতটা আঘাত লেগেছে, তার থেকে বেশি আঘাত তাঁর মনে লেগেছে আপনার কথায়। হয়তো তিনিই যথাস্থানে আপনার নামে নালিশ ঠুকে দিয়েছেন।
মদনদা বয়স হচ্ছে, একটু বুঝে চলতে শিখুন। বুঝে চলেননি বলেই একা আপনি জেলে গেলেন, অন্য সমাজসেবীরা দিব্যি বাইরে রইল। এখন যা অবস্থা, বেশ কিছুদিনের জন্য আপনার সমাজসেবা বন্ধ থাকবে। এই সুযোগে আমার একটা কাজ করে দিন না দাদা। বেঙ্গল টাইমসের হতচ্ছাড়া এডিটর আমাকে লেখার সুযোগ দিচ্ছে না, নিয়মিত টাকাও দিচ্ছে না। ওঁর অফিসের সামনে, ‘বেঙ্গল টাইমস মহাশ্মশান’ লেখা বোর্ড টাঙিয়ে দিন না!

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

1 + 18 =

You might also like...

radio3

না বোঝা সেই মহালয়া

Read More →
game of thrones season 7 episode 1 game of thrones season 7 watch online game of thrones season 7 live streaming game of thrones season 7 episode 1 voot voot apk uc news vidmate download flipkart flipkart flipkart apk cartoon hd cartoonhd cartoon hd apk cartoon hd download 9Apps 9Apps apk