Loading...
You are here:  Home  >  জেলার বার্তা  >  দক্ষিন বঙ্গ  >  Current Article

সাবাস শীলভদ্র, সাবাস দিলীপ

By   /  May 27, 2016  /  No Comments

দিব্যেন্দু দে
একইদিনে কাগজে দুটি ছবি। চারিদিকে যখন সন্ত্রাসের আবহ, তখন এই ছবি দুটো ভরসা দিল। একটি ছবি ব্যারাকপুরের বিধায়ক শীলভদ্র দত্তর, অন্যটি খড়্গপুরের বিধায়ক দিলীপ ঘোষের। দুজন দুই দলের। কিন্তু চমৎকার সৌজন্যের নজির রাখলেন।
আগে দিলীপ ঘোষের কথাই বলা যাক। নানা সময় বিতর্কিত মন্তব্য করেছেন। সেই মন্তব্যের নানা সমালোচনা হয়েছে। কিন্তু বৃহস্পতিবার যা করলেন, তার জন্য আলাদা করে তাঁকে মনে রাখতেই হবে। তিনি এবার হারালেন কংগ্রেসের বর্ষীয়াণ নেতা জ্ঞান সিং সোহনপালকে। চাচা এককথায় সর্বজনশ্রেদ্ধেয়। তাঁর বিরুদ্ধে প্রচারে আগাগোড়াই সংযম বজায় রেখেছেন। দিলীপ ঘোষ বলেছিলেন, চাচার বিরুদ্ধে বলার কিছুই নেই। শুধু এটুকুই বলব, তাঁর বয়স হয়েছে। তাই সেভাবে কাজ করতে পারছেন না। তাই আমাকে একটা সুযোগ দিয়ে দেখতে পারেন।
ভোটে দিলীপ ঘোষ জিতেছেন।জিতেও চাচা সম্পর্কে আগাগোড়াই শ্রদ্ধা দেখিয়েছেন। বৃহস্পতিবার খড়্গপুর গিয়ে দেখা করলেন চাচার সঙ্গে । পায়ে হাত দিয়ে প্রণাম করলেন, আশীর্বাদ নিলেন। চাচাও জড়িয়ে ধরলেন। বিশ্বাস করতে চাই, দিলীপ ঘোষের এই সৌজন্য লোকদেখানো নয়। দিলীপবাবু যতই লাগামছাড়া কথা বলে থাকুন, অন্তত এই একটি ক্ষেত্রে তিনি সবাইকেই মুগ্ধ করলেন।

thums up
এবার শীলভদ্র দত্ত। মাঝে তৃণমূলের মূলস্রোত থেকে কিছুটা দূরেই ছিলেন। ব্যারাকপুরের এই বিধায়ক বেশ সুবক্তা মার্জিত আচরণ। তিনিও একটি বিরল সৌজন্যের নজির স্থাপন করলেন। রাজ্যের নানাপ্রান্তে বিরোধীদের একের পর এক পার্টি অফিস দখল হয়ে যাচ্ছে। কোথাও পার্টি অফিস গুড়িয়ে ফেলা হচ্ছে, কোথাও লাল পতাকা খুলে শাসকদলের পতাকা টাঙিয়ে দেওয়া হচ্ছে। পুলিশ দেখেও দেখছে না। আর শাসকদেলর নেতারা প্রেস কনফারেন্স করে মিথ্যের বেসাতি করছেন। বলছেন, কোথাও নাকি কোনও সন্ত্রাস হয়নি।সবটাই নাকি বিরোধীরা নাটক করছে।
যাক, একজন অন্তত সত্যি কথাটা মানতে পেরেছেন। পার্টি অফিস দখল হওয়ার খবর শুনেই ছুটে গেছেন। বিরোধীদের উদ্যোগ নিয়ে ডেকেছেন। যারা করেছে, তাদের তিরস্কার করেছেন। এমন আচরণের জন্য দুঃখপ্রকাশ করে আবার পার্টি অফিসের চাবি তুলে দিয়েছেন বাম নেতৃত্বের হাতে। আশ্বস্ত করেছেন, বিরোধীদের রাজনৈতিক অধিকার থাকবে। কোথাও কোনওভাবে আক্রান্ত হলে যেন তাঁকে জানানো হয়। যার যা রাজনৈতিক বিশ্বাস থাক, এলাকায় রাজনৈতিক সৌজন্য যে বজায় থাকবে, তাও আশ্বস্ত করেছেন।
এই আবহে হয়ত কিছুটা বেসুরো। এমন সৌজন্য তাঁর দল কতটা ভাল চোখে দেখবে, জানা নেই। তবে শীলভদ্রর এই আচরণ তারিফ করার মতোই। খবরটি অনেক কাগজে ছাপা হয়নি। কোথাও ছাপা হলেও ভেতরের পাতায়। কিন্তু শপথগ্রহণের প্রস্তুতির থেকে এই ছবির তাৎপর্য অনেক বেশি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

5 × one =

You might also like...

radio3

না বোঝা সেই মহালয়া

Read More →
game of thrones season 7 episode 1 game of thrones season 7 watch online game of thrones season 7 live streaming game of thrones season 7 episode 1 voot voot apk uc news vidmate download flipkart flipkart flipkart apk cartoon hd cartoonhd cartoon hd apk cartoon hd download 9Apps 9Apps apk